Breaking News
Home > আন্তর্জাতিক > আমরা না পারলেও যে কাজ টা পেরেছে চীন!

আমরা না পারলেও যে কাজ টা পেরেছে চীন!

আরাকান তথা রাখাইন রাজ্যের রোহিঙ্গাদের ওপর মিয়ানমারের রাষ্ট্রীয় বাহিনী নির্মম অত্যাচার চালাচ্ছে। জ্বালিয়ে দিচ্ছে তাদের বাড়ি-ঘর। ধর্ষণ করা হচ্ছে নারীদের। রোহিঙ্গাদের নির্মূল করতে সৈন্যদের সাথে যোগ দিয়েছে রাখাইন সম্প্রদায়ের লোকজনও।

জাতিসংঘের তথ্যমতে, ১২শ’র বেশি রোহিঙ্গার ঘর-বাড়ি পুড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। প্রাণভয়ে তারা বাংলাদেশে আশ্রয় নিতে এলেও আমরা তাদের আশ্রয় দিইনি। বরং প্রায় প্রতিদিনই শোনা যায়, রোহিঙ্গাদের পুশব্যাক করে মিয়ানমারে পাঠানো হচ্ছে।

জনসংখ্যাধিক্যের চাপ সামলানোর ঝুঁকির কারণেই হয়তো আমাদের সরকার নতুন করে রোহিঙ্গাদের বাংলাদেশে প্রবেশে বাধা দিচ্ছে। কিংবা থাকতে পারে অন্যকোনো কারণও। কেননা, মিয়ানমার থেকে পালিয়ে আসা ৫ লক্ষের বেশি রোহিঙ্গা ইতোমধ্যে বাংলাদেশে আশ্রয় পেয়েছে। তাদের চাপ সামলাতেই সরকার ব্যতিব্যস্ত।

মিয়ানমারের বাংলাদেশ সীমান্তে যেমন রোহিঙ্গারা দেশ ছেড়ে পালাতে চাইছে। তেমনি চীন সীমান্তেও চলছে অস্থিরতা। সেখান থেকেও মানুষজন জীবন বাঁচাতে দিকবিদিক ছুটছে। তারা চীন সীমান্তে গিয়ে আশ্রয় খুঁজছে। আর মানবিক কারণে চীন তাদের সীমান্ত খুলে দিয়ে আশ্রয়প্রার্থীদের গ্রহণও করছে।

জানা গেছে, ২০ নভেম্বর রোববার থেকে মিয়ানমারের উত্তরাঞ্চলের চীন সীমান্তে তাং ন্যাশনাল লিবারেশন আর্মি, কাচিন ইনডিপেন্ডেন্স আর্মি ও মিয়ানমার ন্যাশনাল ডেমোক্রেটিক এলায়েন্স আর্মি নামে তিনটি বিদ্রোহী গ্রুপের সঙ্গে সেনাবাহিনীর লড়াই চলছে।

মিয়ানমারের উত্তর সীমান্তবর্তী মুসে এবং কুটকাই শহরের কাছে পুলিশ ও সামরিক বাহিনীর ফাঁড়ির ওপর অতর্কিত আক্রমণ চালায় এ তিনটি জাতিগত বিদ্রোহী গ্রুপ। পরে সেনাবাহিনীর সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে ৮ জন নিহত হয়।

লড়াই থেকে বাঁচতে ওই অঞ্চলের অসংখ্য বাসিন্দা এলাকা ত্যাগ করে চীনের দিকে যাচ্ছেন।

মানবিক কারণে চীনও সীমান্ত পেরিয়ে চলে যাওয়া এসব লোকদের গ্রহণ করেছে। চীনের হাসপাতালগুলোতে পালিয়ে যাওয়া ব্যক্তিদের মধ্যে অসুস্থ ও আহতদের চিকিৎসাও দেয়া হচ্ছে।

চীন যা পারছে তা হয়তো আমাদের পক্ষে সম্ভব নয়। তাছাড়া, আমাদের সরকারের পলিসিও আমরা পুরোপুরি জানি না। আর আমরা আমাদের সরকারের ইচ্ছের বিরুদ্ধেও কিছু বলতে চাই না।

তবে, এই প্রার্থনা করি যে, মহান আল্লাহ আমাদের রাষ্ট্রকে সেই সামর্থ্য দিন যাতে বর্বর মিয়ানমার বাহিনীর দ্বারা আক্রান্ত রোহিঙ্গা ভাই-বোনদের প্রতি আমরাও যেন সহায়তার হাত বাড়াতে পারি।

-বাংলাদেশীজম

Check Also

rohinga

বার্মার রোহিঙ্গা মুসলিমদের অত্যাচারের শেষ কোথায়…. (ভিডিও সহ)

বার্মার রোহিঙ্গা মুসলিমদের অত্যাচারের শেষ কোথায়…. (ভিডিও সহ) বার্মার রোহিঙ্গা মুসলিমদের অত্যাচারের শেষ কোথায়…. (ভিডিও …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *