Breaking News
Home > লাইফস্টাইল > মেয়েরা চুড়ি ও নাকফুল না পড়লে স্বামীর আয়ু কমে, ইসলামের ব্যাখ্যা

মেয়েরা চুড়ি ও নাকফুল না পড়লে স্বামীর আয়ু কমে, ইসলামের ব্যাখ্যা

আমাদের সমাজে অনেক বিবাহিতা মহিলাকেই শুনতে হয় যে হাতে চুড়ি না পড়লে বা নাকে নাকফুল nose-ring না পড়লে স্বামীর আয়ু কমে যায় বা স্বামীর অমঙ্গল হয়।

ঠিক যে বিশ্বাস নিয়ে বিধর্মী মহিলারা শাঁখা-সিঁদুর পরে, আজও অনেক মুসলমান মা বোন সেই একই ধরনের কুসংস্কারে বিশ্বাসী হয়ে চুড়ি-নাকফুল Bangles nose-ring পরেন।

কিন্তু ফিক্বাহ শাস্ত্রের নির্ভরযোগ্য কিতাবাদি অধ্যয়নে একথাই প্রমাণিত হয় যে, মেয়েরা কান ও নাক ছিদ্র করে গহনা পরতে পারবে। কেননা কানে গহনা পরার রীতি নবী করীম (সাঃ) জীবিত থাকা অবস্থায়ও ছিল, তথাপি তিনি এটি নিষেধ করেননি।

প্রশ্নে উল্লিখিত ধারণাটি ভ্রান্ত, কুসংস্কার ও আল্লাহ তায়ালার কালাম পাকের বিপরীত। কারণ আল্লাহ তায়ালা সমস্ত মানুষের হায়াত নির্দিষ্ট করে রেখেছেন। সে সময়ের পূর্বে বা পরে কারো মৃত্যু হবে না। তাই ঐ সমস্ত ভ্রান্ত ধারণা পরিত্যাগ করা অপরিহার্য।

রূপচর্চা ও স্বাস্থ্য বিষয়ক যে কোন তথ্যের জন্য আমাদের পেজ স্বাস্থ্য সেবা ।। Health Tips এ লাইক দিয়ে এক্টিভ থাকুন।

Check Also

“ছেলেদের দোষ নাই, আমাদের পোশাকের কারণে আমরা ধর্ষণের শিকার হই”– পড়ুন এই আপুর লেখাটি…

ধার্মিক পরিবারের পর্দানশীন এক মেয়ে সৈয়দা শারমিন ইস্পাহানী। তিনি তার ফেসবুক স্ট্যাটাসে একটি চমৎকার লেখা …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *