Breaking News
Home > লাইফস্টাইল > মেয়েদের যে গোপন বিষয়গুলো ছেলেদের কখনোই জানায় না

মেয়েদের যে গোপন বিষয়গুলো ছেলেদের কখনোই জানায় না

মেয়েদের-যে-গোপন-বিষয়গুলো-ছেলেদের-কখনো-জানায়-নাপ্রেমিকরা কি তাদের প্রেমিকার সম্পর্কে সব কিছু জানতে পারে? সম্পর্ক যত দীর্ঘ সময়েরই হোক না কেন প্রেমিকার মনের সব গোপন কথা প্রেমিক কখনোই জানতে পারবে না এ কথা হলফ করে বলা যায়। মেয়েদের কিছু কিছু সিক্রেট থাকে যেগুলো তারা কাউকেই বলতে স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করে না।
বিশেষ করে তারা কিছু বিষয় ভুলেও প্রেমিককে জানায় না। আসুন জেনে নেয়া যাক প্রেমিকাদের সেই ৬টি সিক্রেট বিষয়গুলো তারা প্রাণপণে লুকিয়ে রাখে প্রেমিকদের কাছ থেকে।

আসল বয়স
মেয়েদের আসল বয়স জানা আসলেই কঠিন। আসল বয়সটা ঠিক কত এটা বেশিরভাগ মেয়েরাই তার প্রেমিককে বলতে চায় না। এমনকি অনেক মেয়ে তার সবচাইতে কাছের মেয়ে বান্ধবীকেও নিজের আসল বয়স বলতে দ্বিধা বোধ করে। তাই নিজের প্রকৃত বয়সের চাইতে কয়েক বছর কমিয়ে বলার প্রবণতা লক্ষ্য করা যায় অনেকের মধ্যেই। বয়স বললেই বুড়িয়ে যাবেন এমনটাই মনে করেন বেশিরভাগ নারী।

প্রেমের সংখ্যা
প্রেমিকার পূর্বে কত গুলো প্রেম ছিলো এটা জানাটা প্রেমিকদের জন্য মোটামুটি অসম্ভব একটি ব্যাপার। কারণ কোনো নারীই নিজের জীবনের সঠিক প্রেমের সংখ্যা বলে না কাউকে। প্রেমিককে তো একেবারেই নয়। এক্ষেত্রে বেশিরভাগ নারীই তাদের প্রেমিকের কাছে বলে থাকে যে এটাই তার জীবনের প্রথম প্রেম।

কুমারীত্ব
বর্তমান সমাজে নৈতিক অবক্ষয়ের কারনে অনেক মেয়েই বিয়ের আগেই কুমারীত্ব হারিয়ে ফেলছে। কিন্তু পরবর্তিতে দেখা যাচ্ছে সেই সম্পর্কটি টিকছে না এবং অন্য কোথাও বিয়ে করছে তারা। প্রেমিক কিংবা স্বামী যদি কুমারীত্ব নিয়ে প্রশ্ন করে তাহলে প্রায় সব মেয়েই কুমারীত্ব হারানোর বিষয়টি অস্বীকার করে কিংবা এড়িয়ে যায়, কিংবা বানোয়াট একটা কাহিনী বলে। কখনোই স্বীকার করে না যে ব্যাপারটি তার মর্জিতেই হয়েছে।

প্রেমের প্রস্তাব
বেশিরভাগ মেয়েরাই মনে করেন যে প্রেমের প্রস্তাবের সংখ্যা যার যত বেশি সে তত বেশি সুন্দরী ও যোগ্য। আর তাই নিজের প্রেমিকের কাছে অনেক মেয়েই প্রেমের প্রস্তাবের সংখ্যাটা বাড়িয়ে বাড়িয়ে বলে থাকে। জীবনে একটি প্রেমের প্রস্তাব না পেলেও অনেকেই সেটাকে বাড়িয়ে অনেক গুলো প্রেমের প্রস্তাব পাওয়ার কথা বলে থাকে।

বাবার সম্পত্তি
মেয়েরা বাবার সম্পত্তি নিয়ে বেশ কিছু বিষয় প্রেমিকের কাছে সিক্রেট রাখে। অধিকাংশ মেয়ের ধারণা যে যার বাবার যত বেশি সম্পদ, প্রেমিকের কাছে তার দাম তত বেশি। আর এই ধারণার কারনেই বেশিরভাগ প্রেমিকা তার প্রেমিকের কাছে বাবার ধন সম্পদের বিবরণটা কিছুটা রঙ-চং মাখিয়ে বাড়িয়ে বলে থাকে। অর্থাৎ প্রেমিকার বাবার প্রকৃত আর্থিক অবস্থার বিষয়টি অনেক প্রেমিকই জানতে পারে না।

বিঃ দ্রঃ প্রতিদিন প্রয়োজনীয় সকল স্বাস্থ্য টিপস আপনার ফেসবুক টাইমলাইনে পেতে আমাদের পেজ স্বাস্থ্য সেবা ।। Health Tips এ লাইক দিন! 

Check Also

সুখি হতে স্বামী-স্ত্রীর বয়সের পার্থক্য কত হওয়া উচিৎ ? জেনে নিন…

সম্প্রতি আমেরিকার আটলান্টার এমোরি বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি প্রতিনিধি দল প্রায় তিন হাজার মানুষের উপর এক সমীক্ষা …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *