Breaking News
Home > ব্যক্তিগত > আপু সন্ধ্যা থেকে মধ্যরাত পর্যন্ত ও আমাকে….

আপু সন্ধ্যা থেকে মধ্যরাত পর্যন্ত ও আমাকে….

আপু/ভাইয়া,আশা করি ভালো আছেন,হয়তো আমার লেখা পাবার পরে জিজ্ঞেস করবেন আমি কেমন আছি কিন্তু তার প্রতিউত্তরে আমি কিছুই বলতে পারতাম না শুধুই চেয়ে থাকতাম কারণ এই মুহুর্তে আমার কিছুই বলার নেই,বলতে পারেন আমি নির্বাক,আর নির্বাক কেনোই বা হবো না,দিনে দিনে যা হচ্ছে তাতে করে কিছুই বলার চেয়ে নির্বাক থাকাটাই বোধহয় ভালো,আচ্ছা এবার মুল কথাই আসি আমি অনেকদিন থেকে আপনাদের লেখা পড়ছি,অনেক মেয়েই তাদের কষ্টের কথা শেয়ার করে যেগুলো আসলে ভাবতেই অবাক লাগে,গত কয়েকদিন থেকে ভাবলাম আমার ঘটনাটি আপনাদেরকে জানানো প্রয়োজন,তাই আজকে লিখেই ফেললাম,ঘটনাটির সুত্রপাত বছরখানেক আগে শাওনের সাথে আমার ফোনে পরিচয় হয়,শুরুতেই কথা বলতে চাইনি কিন্তু কিভাবে যে কি হয়ে গেলো,প্রথমে কথা তারপর বন্ধুত্ব এবং সর্বশেষ যেটা হয় সেটাই হলো ভালবেসে ফেললাম.

এভাবেই চলছিলো বেশ ভালোই,আমি ওকে ছবি দিতে বললাম,ছবি দেখলাম, তারপর স্কাইপে কথা বললাম,আমার এত ভালোলাগলো শাওন কে দেখে সেটা আসলে বলে বোঝাতে পারবো না,আমাদের মধ্য প্রায় সব বিষয়েই কথা হতো নিয়মিত,আমি ফ্রি হতাম সন্ধ্যার পরে তারপর শাওন কে নিয়ে ব্যস্ত থাকতাম, আপু এভাবেই প্রতিদিন সন্ধ্যা থেকে মধ্যরাত পর্যন্ত ও আমাকে বিভিন্ন বিষয়ে ব্যাস্ত রাখতো.

Todays Hot News

তিনি আমার চাচী, কিন্তু আমাদের স্বামী-স্ত্রীর মত সম্পর্ক, ইসলামের দৃষ্টিতে আমি এখন কি করবো?

“ও বয়সে ছোট, কিন্তু আমাদের মাঝে অনেক কিছু হয়েছে” এখন কি করি?

আমি আর আমার মামী শুয়ে আছি হঠাৎ দেখি বাবা এসে মামীকে…

স্বামী আমার চেয়ে ২০ বছরের বড়, জেনেই বিয়ে করেছি : কিন্তু বিয়ের পর…

টাঙ্গাইলের পতিতালয় থেকে উঠে আসা ধানমন্ডির অনিকার কাহিনি পড়ুন …চোখের পানি ধরে রাখতে পারবেন নাহ!

একদিন সময় করে দেখা করতে চেয়েছি,দেখা করার স্থান শান্তিনগরের সয়াসদি চাইনিজ রেস্টুরেন্ট,প্রথমে ও বসুন্ধরা মার্কেটে এলো,প্রথম দেখাতেই সত্যি আমি চরম অভিভূত,স্কাইপ তে যা দেখেছিলাম বাস্তবে তার থেকে আরো বেশী স্মার্ট,ওকে নিয়ে আমি কেনাকাটা করলাম দুইজনের বিল হলো প্রায় বারো হাজার টাকা,তারপর গেলাম রমনা পার্কে তারপর সেই সয়সদি রেস্টুরেন্টে অনেক গল্প হলো দুইজন মিলে ডিনার করলাম, এখানে বিল হলো সাত হাজার টাকা, রাত একটু বেশী হয়ে যাচ্ছিল তাই শাওন বাসায় যাবার জন্য অস্থির হয়ে যাচ্ছিল,আমি ওকে সিএনজি তে উঠিয়ে দিলাম,কিন্তু দুঃখের বিষয় সেই যে গেলো আর এলো না,তারপর থেকে মোবাইল নাম্বার বন্ধ এবং ফেসবুক থেকে শুরু করে সবকিছুতেই সে উধাও.

আপু আমার একদিনেই ওর পিছনে খরচ হলো প্রায় বিশ হাজার টাকা,তাছাড়া অনেক সময় আমি ওকে মোবাইলে লোড দিয়ে দিতাম,বিভিন্ন অনুষ্ঠানে গিফট পাঠাতাম,সব মিলে আমার প্রায় পঞ্চাশ হাজার টাকা খরচ হয়েছে,কিন্তু লাভ কি হলো,এত সুন্দর দেখতে পুরাপুরি মেয়ে যে ভন্ড হবে সেটা ত আগে বুঝতে পারিনি.

আপু আপনারা ত সবসময় ছেলেদেরকে খারাপ বলেন আর এই মেয়ে যে আমার কস্টের টিউশনির টাকা গুলো প্লান করে নিয়ে ভেগে গেলো,এখন কি বলবেন আমাকে?
আমি সকল পাঠকদের কাছে প্রশ্ন ছুড়ে দিলাম এইসব মেয়েদের কিভাবে কি করা উচিত সেটা আপনারাই বলুন.

পরামর্শঃ তোমার মনের অবস্থা বুজতে পারছি, এই বিষয়ে সকলকে সাবধান করা ছাড়া আর কিছুই বলার নেই, যেহেতু অনেক কস্ট করে কিছু টাকা খরচ করেছো সেহেতু দেখো পাঠকরা কি বলে হয়তো অনেকের অনেক কথা শুনে তুমি নিজের দুঃখটা হালকা করতে পারবে

কার্টেসীঃভিন্ন ডটকম

Check Also

hjjjhh

কনডম/ওষুধ ছাড়া যৌন মিলন করলেও বাচ্চা হবে না (ভিডিও সহ)

কনডম/ওষুধ ছাড়া যৌন মিলন করলেও বাচ্চা হবে না (ভিডিও সহ) কনডম/ওষুধ ছাড়া যৌন মিলন করলেও …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *